TRAVEL GUIDE ON TINCHULEY

TRAVEL GUIDE ON TINCHULEY

Travel Guide on Tinchuley : তিনচুলেতে তিনদিন – মালবিকা ব্যানার্জির কলমে গরম গরম আলুর পকোড়ায় কামড় বসাতে বসাতে কর্তা তারাভরা আকাশের তলায় দূরের পাহাড়ের গায়ে আলোমাখা এক অচিনপুরীর দিকে আঙুল তুলে দেখালেন, “ঐ… ঐ যে বাঁদিকে দূরে ঝলমল করছে..ওটা দার্জিলিং। আর পাশের ওটা কালিম্পং। সামনে আলোকমালার মত যেটা দেখা যাচ্ছে, ওটা তিস্তা ভ্যালি। ওপরে টাইগার হিল , চটকপুর আর ডানদিকে উপরে ডাউহিল!” সামনের আবছায়া পাহাড়ের গায়ে যেন সহস্র জোনাকি জ্বলেছে। মুগ্ধ চোখে তাকিয়ে রয়েছি আমি। এতবার পাহাড়ে গেছি আমি; তবু, পাহাড় আমায় মুগ্ধ করে আজও। তিনচুলেতে প্রথম দিন : দার্জিলিং এ দুরাত্তির কাটিয়ে আমাদের পরবর্তী গন্তব্য ছিল তিনচুলে। দার্জিলিং থেকে দূরত্ব মাত্র ৩২ কিমি হলেও রাস্তা খুব একটা সুবিধের নয়। গাড়িগুলো যে কারণে এটুকু পথ আসতে ২৫০০ টাকার চেয়ে একপয়সা কম নিল না। যাইহোক, তাকদা কে পিছনে ফেলে আমরা যখন তিনচুলে তে এসে পৌছলাম ঘড়িতে তখন দুপুর একটা। তিনচুলেতে দারুন সব রিসর্ট (যেমন, গুরুং গেস্টহাউস, রাই রিসর্ট, অভিরাজ গেস্টহাউস) থাকলেও আমরা জেনে বুঝেই অপেক্ষাকৃত কম-প্রচারিত হামরো গেস্টহাউস এ বুকিং করেছিলাম। এর একটাই কারণ –জনপ্রিয় ট্রাভেল গ্রুপে গেস্টহাউসের মালিক সুরেন রাই এর আতিথেয়তা সম্পর্কে উচ্ছ্বসিত প্রশংসা। তো, সুরেনজী বাইরেই অপেক্ষা করছিলেন আমাদের আগমনের। আমাদের দেখেই এক গাল হেসে অভ্যর্থনা জানালেন । ওনার সাথে ফোনে বহুবার কথা হয়েছিল এবং সেই থেকেই মানুষটি কেমন একটা ধারনা হয়ে গিয়েছিল । রাস্তা-লাগোয়া সুন্দর ছবির মত হোমস্টে, ফুলে ফুলে ভরা। রাস্তার উচ্চতা থেকে সিঁড়ি দিয়ে একটু নেমেই থাকবার ঘরগুলো। এখানে সব আস্তানা গুলো এই প্যাটার্নের। উনি আমাদের ঘর দেখিয়ে দিলেন। বিছানা, টেবিল, চেয়ার, টিভি, গিজার নিয়ে দারুন সুন্দর কাঠের ঘর। উপরে দুটি আর নীচে দুটি–মোট চারটি ঘর। ঘরের বারান্দা থেকেই পাহাড় দেখে দেখে সময় কাটিয়ে দেওয়া যায়। ডাক পড়ল দুপুরের খাবারের। সুরেনজীকে আগে থেকেই কর্তা...
TRAVEL GUIDE ON KINNAUR VALLEY

TRAVEL GUIDE ON KINNAUR VALLEY

TRAVEL GUIDE ON KINNAUR VALLEY – হিমাচলের বিস্ময় : কিন্নর – অভিজিৎ গোলদারের কলমে কিন্নর শব্দটির সঙ্গে আমার প্রথম পরিচয় কোন এক কৈশোর বেলায় প্রিয় লেখক বিভূতিভূষণের হাত ধরে। ঝিনুকের ভিতরে মুক্তোর মতোই রংচটা এক প্রচ্ছদের মধ্যে পেয়েছিলাম কিন্নরদল গল্পটির সন্ধান। গল্পের রেশ হয়তো কেটে গিয়েছিল কিন্তু চলচ্চিত্রায়নের সুবাদে পুরোনো ভালোলাগা আবার ফিরে এসেছিল কলেজে পড়ার সময়। তখনই আবার কিন্নর নামের সঙ্গে জুড়ে থাকা অনুষঙ্গ মনে ঢেউয়ের মত দোলা দিয়ে গেল। কারা সেই অপরূপ কিন্নর-কিন্নরীর দল যারা দেবসভায় নৃত্যশিল্পের উৎকর্ষে মনভোলায় দেবতাদের। কেমন সেই কিন্নর দেশ যেখানে বিহার করে সেই সুন্দরেরা। জানিনা কখনও এসব প্রশ্নে অজান্তে আনমনা হয়েছি কিনা তবে বেড়ানোর নেশাটা পেয়ে বসার সঙ্গে সঙ্গে কিন্নরদের দেশ দেখার শখটা মাথায় ঘুরপাক খেতো বারবার। তাই এবারের পুজোয় গন্তব্য ঠিক হয়েছিল দেবভূমি হিমাচলের গৌরবান্বিত সৌন্দর্য স্থল কিন্নরভূমি। হেমন্তের সেই অপূর্ব রঙের শোভা, বিচিত্র স্বাদেগন্ধে অতুলনীয় আপেল বাগিচা, তুষারধবল পর্বতচূড়া, উচ্ছ্বসিত স্রোতস্বিনীর মোহময়ী রূপ-এভাবে কিন্নরদের দেশ আমায় জয় করে নেবে যাওয়ার আগে ভাবিনি। দেবভূমি হিমাচলে এই নিয়ে তৃতীয়বার আগমন। কিন্ত এবারেও টয়ট্রেনে চাপার সৌভাগ্য হয়ে উঠলো না। আমাদের টিকিট ও লাস্ট কনফার্ম টিকিটের মাঝে সামান্য কয়েক ধাপ বাকি রেখে শিবালিক এক্সপ্রেস ক্ষান্ত হল। বেজার মুখে গাড়িবন্দি হয়ে হরিয়ানা সীমান্ত পার করে দেবভূমি হিমাচলে আবারও প্রবেশ করলাম। সিমলার যে হোটেলে আছি সেটা এত সুন্দর জায়গায় যে বলে বোঝানো যাবেনা। হোটেলের মান একদম সাধারণ, বাকি পরিসেবাও যথেষ্ট নয় কিন্তু অবস্থানগত কারণে বা গুণে তা হয়ে উঠেছে আমাদের কাছে অনন্য। জাখু টেম্পলের কাছাকাছি এর অবস্থান। ঠাস বুনোট সিডারের জঙ্গলের মাঝে একাকী নিঃসঙ্গ এই হোটেল। সিমলা ম্যালের মাত্র দেড় কিলোমিটারের মধ্যেই এমন সুন্দর প্রকৃতির সান্নিধ্য আপ্লুত করবেই। লাঞ্চের পর হোটেলের ছাদে একপ্রস্থ রোদ পোহানোর পর বেরিয়ে পড়েছি সিমলা ম্যালের উদ্দেশ্যে। গাড়ির সুবিধা থাকলেও ঘন জঙ্গলের...
TRAVEL GUIDE ON NAMCHI RAVANGLA PELLING

TRAVEL GUIDE ON NAMCHI RAVANGLA PELLING

GANGTOK, NAMCHI, RAVANGLA AND PELLING IN 3 NIGHTS 4 DAYS – by Anindita Barui We, Bengalis, are known for our passion for travelling. Whenever we get a chance we strat making plans for a holiday. Be it a weekend trip or a long holiday we are always ready to explore new places. Me & my husband are no different. Last year two of us along with our two friends suddenly made a plan for Ravangla in South Sikkim. 3 NIGHTS – 4 DAYS ITINERARY Day 1 : Reach Gangtok & go for sightseeing. Night stay at Gangtok. Day 2 : Travel from Gangtok to Ravangla. Enroute Temi Tea Garden & Namchi. Night stay at Ravangla. Day 3: Maenam hill trek. Night stay at Ravangla. (We had a back up plan to visit Pelling on this day as there was a chance for raining). Day 4 : Ravangla sightseeing & return to NJP. So after all the bookings, we started our journey on 27th april, 2018. We had our booking in ‘Uttarbanga Express’ from sealdah station to reach New Jalpaiguri. After reaching New Jalpaiguri in the next morning, we hired a car for Gangtok. Luckily, it was a sumo & costs 2500 rupee only after bargaining. So whenever you are hiring a car outside NJP railway station, must bargain with the driver. Our plan was to reach gangtok before lunch. But due to heavy traffic we reached ‘Deorali’ at 3.15 pm. From here one has to take another car to reach gangtok. The distance is almost 5km & it charged Rs. 300 for the trip. So finaly we reached Gangtok...
Rinchenpong – The Jewel in West Sikkim

Rinchenpong – The Jewel in West Sikkim

পশ্চিম সিকিমে রিনচেনপং ও উত্তরে অনাবিল প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ঘেরা, পশ্চিম সিকিমের এক ছোট্ট হিল স্টেশন রিনচেনপং, যেখানে কাঞ্চনজঙ্ঘার অপরূপ শোভা দেখার হাতছানি। সিকিমের পর্যটন মানচিত্রে নব সংযোজন কালুক ও রিনচেনপং এই দুটি জোড়া পাহাড়ি গ্রাম। (adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({}); চার মাস আগে ট্রেনের টিকিট কেটে রেখেছিলাম NJP অবধি, পশ্চিম সিকিমের প্ল্যান করে। শনি ও রবির সাথে বড়দিন – সব মিলিয়ে তিন দিনের ট্যুর। পেলিং আগে ঘোরা। তাই ওদিকের রাস্তার করুণ দশার কথা শুনে শেষ মুহুর্তে পেলিং বাদ দিয়ে, রিনচেনপং যাওয়া ঠিক করে ফেলি। ইন্টারনেটে খোঁজখবর নিয়ে, “রিনচেনপং নেস্ট” হোটেলটির নম্বর জোগাড় করে, ফোনে ঘর বুক করি। বিনা অ্যাডভান্সে স্টেশনে গাড়িও পাঠিয়ে দেবার কথা বলে সিকিমিজ হোটেল মালিক। শুক্রবার রাতে পদাতিক এক্সপ্রেসে চড়ে পরদিন সকালে নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন। সেই চেনা NJP,  স্টেশন চত্বরে  শতাধিক গাড়ি ও পাহাড়ে চড়ার ব্যস্ততা। Bengal Tourism এর “Welcome to Majestic Mountains and Enchanting Dooars”  লেখা বোর্ড। সব মিলিয়ে ট্রেন থেকে এখানে নামলেই যেন নতুন এক পাহাড় অভিযানের আনন্দে মনটা ভাল হয়ে যায়। কুয়াশার কারণে ঘণ্টা দেড়েক লেট ছিল ট্রেন। হোটেল থেকে পাঠানো কুমার দাজুর গাড়িতে রওনা দিতে সোয়া এগারোটা বেজে গেল। ১২০ কিমি পথ রিনচেনপংয়ের। শিলিগুড়ি শহরের জ্যাম পার হয়ে মহানন্দা স্যাংচুয়ারির রাস্তা, তারপর সেবক থেকে তিস্তাকে সঙ্গী করে সেই বহু চেনা পথ। ২০১৭র মাস চারেকের ভয়ংকর পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠেছে আমার প্রিয় পাহাড়। তিস্তাবাজারে তিস্তাকে পার হয়ে পূর্ব পাড়ে গিয়ে, ১0কিমি চলে মেলি। তারপর মেলিতে গ্যাংটক গামী রাস্তা ছেড়ে, আবার তিস্তা পার করে পশ্চিম পাড়ে এসে চেকপোস্ট পেরিয়ে সিকিমে প্রবেশ। (adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({}); মেলির পর থেকেই রাস্তার বেহাল দশা, জাতীয় সড়ক নির্মাণের কাজ চলছে। মেলি থেকে শুরু হয়ে, পশ্চিম সিকিমের মধ্যে দিয়ে, একেবারে ভারত-নেপাল সীমান্তের শেষ গ্রাম উত্তরে অবধি। বছর দুয়েক আরো...
Ladakh – Itinerary For 11 Nights 12 Days

Ladakh – Itinerary For 11 Nights 12 Days

LADAKH ITINERARY Ladakh, the land of high passes, is one of the most popular summer holiday destinations in India. Riding across high altitude mountain passes, visiting monasteries are the major allure of Ladakh. Besides spell binding landscapes, Ladakh is renowned for its ancient Buddhist monasteries. If you are planning for Ladakh in upcoming summer, the following plan will help you a lot. DAY 1: Reached Delhi at night from Kolkata DAY 2: Arrived Leh from Delhi and take rest on the same day. Night stay at Leh DAY 3: Covered sightseeing Lamayuru, Magnetic Hill, Patthar Sahib via Leh-Srinagar NH1. Night stat at Leh. DAY 4: Moved towards Nubra Valley via Khardungla(This is not World’s Highest Motorable Road) and Diskit Monastery and Night halt at Hunder DAY 5: Visited Turtuk one of the last village before POK and Night stayed at Hunder. DAY 6: Returned back to Leh DAY 7: Visited Pangong Tso via Chang La, Tsoltak and back to Leh DAY 8: Reached Tso Moriri via Kyagar Tso, Night stayed at Korzok village DAY 9: Moved towards Jispa via Leh-Manali Highway and visited Tso Kar, Nakeela, Baralacha, Gata Loops, Zingzing Bar, Tsarap River, Sarchu and Night Stayed at Jispa DAY 10: Arrived Manali via Sissu village, Rohtang Pass. Night stay at Manali. DAY 11: Reached Chandigarh from Manali DAY 12: Arrived Kolkata from Chandigarh via Delhi Accommodation in this route : Leh – Hotel Tiger Hill – 094199 86550 Nubra Valley – Habib Guest House – 098205 01211 Korzok, Tso Moriri – Hotel Lake View – 098115 95469 Jispa – Padma Lodge – 094189 11164 Manali – Hotel Summer King – 098172 77000 Car Contact Details: Mansur Ali –...
Bersey Rohdodendron Sanctuary Trek : West Sikkim Tourist Destinations

Bersey Rohdodendron Sanctuary Trek : West Sikkim Tourist Destinations

Bersey Rohdodendron Sanctuary Trek : West Sikkim Tourist Destinations রোডোডেন্ড্রনের মাঝেঃ ভার্সে ট্রেকিং চট করে একবার হিলে ভার্সে ঘুরে আসুন। দারুণ সুন্দর একটা ট্রেকিং আপনার জন্য অপেক্ষা করছে। না, না, ঘাবড়াবেন না একদম। এই ট্রেক করতে গিয়ে আপনাকে অনেক কিছু নিয়েও যেতে হবে না, ওষুধও খেতে হবে না। তবু যখন ফিরে আসবেন, দেখবেন এর স্মৃতি লেগে থাকবে চোখে মুখে। চোখ বুজলেই দেখতে পাবেন ঐ বনবীথির প্রতিটি বাঁক, অনুভব করতে পারবেন পায়ের তলায় বিছিয়ে থাকা পাতার মখমল, দেখতে পাবেন হরেক রকম রঙের গুরাসের ক্যানভাস। ঠিক ধরেছেন, গুরাস হল আমাদের পরিচিত সেই পাহাড়ি ফুল, রোডোডেন্ড্রন। আর যে রাস্তাটির কথা বললাম, সেটি হল ভার্সে রোডোডেন্ড্রন স্যানকচুয়ারির পথ। হিলে থেকে আপনাকে যেতে হবে ভার্সে। ওখানে যে চেক পোস্ট আছে, সেখান থেকে আপনাকে হাঁটতে হবে প্রায় ৪ কিমি। এটাই ট্রেকিং। সময় লাগবে ধরুন ঘন্টা দুয়েক। তবে আপনার ফোটোগ্রাফির সখ থাকলে সময় অনেক বেশি লাগবে। কারণ প্রতিটি বাঁকেই আপনি ছবি না তুলে আসতে পারবেন না। কি ভাবে যাবেনঃ নিউ জলপাইগুড়ি বা শিলিগুড়ি থেকে গাড়ি নিয়ে অথবা বাসে যেতে হবে জোরথাং। শেয়ার গাড়ি হলে জোরথাং এ গিয়ে অন্য গাড়ি নিতে হবে। জোরথাং থেকে আপনাকে যেতে হবে ওখরে তে। ওখরে থেকে হিলে আর ভার্সে যেতে হয়। এবারে বলি কি, কবে, কোথায়ঃ ১. ভার্সে যেতে হলে আপনাকে হিলে হয়ে যেতে হবে। আবার হিলে তে আপনাকে যেতে হবে ওখরে হয়ে। তাই ওখরে তে একরাত থাকতেই হবে। ওখরে খুব সুন্দর জায়গা। ছোট্ট একটা জনপদ, পাহাড়ের ঢালে ঢালে কয়েকটা ঘরবাড়ি। আছে একটা ছোটো স্কুল। ওখরে থেকে যে দৃশ্য আপনি দেখতে পাবেন, তা অসাধারণ। ওখান থেকে আপনি অন্যান্য কয়েকটা জায়গাও দেখে আসতে পারবেন। ওখরের উচ্চতা প্রায় ৯০০০ ফিট, ভার্সের উচ্চতা ১০০০ ফিট বেশি। ২. ওখরে থেকে হিলের দূরত্ব ৯ কিমি। ওখানে এম...